ভিডিও (টিকটক) করতে গিয়ে নিজের মাথায় গুলি, মায়ের পিস্তলে কিশোরের মৃত্যু!

আন্তর্জাতিক

জিএসএন নিউজ ডেক্স: বর্তমানে বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে টিকটক। বিভিন্ন বয়সের ছেলেমেয়েরা টিকটক ভিডিও বানিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করে থাকেন। শখের বসে বানানো এসব ভিডিও অনেক সময় ডেকে আনে মারাত্নক দূর্ঘটনা।

টিকটক ভিডিও বানানোর জন্য নিজের মাথায় গুলি করায় মৃত্যু হয়েছে এক কিশোরের। ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের উত্তরপ্রদেশের বরেলির মুদিয়া ভিকামপুর গ্রামে।

জানা যায়, সেনা কর্মকর্তার ১৮ বছর বয়সী ছেলে কলেজ পড়ুয়া কেশব কুমারের টিকটক ভিডিও বানানোর নেশা ছিল। মাঝেমাঝে ভিডিও বানিয়ে সেগুলো নিজের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করত কেশব।

তার মা সাবিত্রী দেবীর পিস্তলের লাইসেন্স রয়েছে। সোমবার (১৩ জানুয়ারি) বিকেলে কেশব স্কুল থেকে ফিরে মায়ের কাছ থেকে পিস্তল চায়। আর তা দিয়ে নিজের মাথায় গুলি করায় ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়েছে তার।

কেশবের মা সাবিত্রী দেবী বলেন, ‘প্রথমে আমি পিস্তল দিতে চাইনি। কিন্তু কেশব অনেক করে বায়না করার পর শেষ পর্যন্ত আমার আলমারি থেকে পিস্তল বের করে দিয়ে আমি রান্নাঘরে কাজ করছিলাম। হঠাৎ করেই গুলি চলার শব্দ শুনতে পাই। ঘরে ঢুকে দেখি মাটিতে পড়ে আছে কেশব। মাথা থেকে রক্ত বেরিয়ে চারদিক ভেসে যাচ্ছে। সঙ্গে সঙ্গে ওকে বরেলির একটা হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাক্তাররা ওকে মৃত ঘোষণা করেন।‘

নবাবগঞ্জ থানার অফিসার যোগেন্দ্র যাদব বলেন, কেশবের পরিবার জানিয়েছে দেহের ময়নাতদন্ত করার প্রয়োজন নেই। পিস্তলটি সাবিত্রী দেবীর নামে রয়েছে। সেটি তার আলমারিতেই রাখা থাকত। তবুও এই ঘটনায় একটি এফআইআর দায়ের করেছে পুলিশ। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *